বার্সাকে ২-০ গোলে হারিয়ে স্প্যানিশ লিগের শীর্ষে রিয়াল মাদ্রিদ

এল ক্ল্যাসিকোয় ৭ ম্যাচ পর জয়ের দেখা পেলো রিয়াল মাদ্রিদ। বার্সাকে ২-০ গোলে হারিয়ে স্প্যানিশ লিগের শীর্ষ উঠলো লসব্লাঙ্কোস।

সাম্প্রতিক পরিসংখ্যান, পারফরম্যান্স এসবকিছুকেই বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখালো তাঁরা। ঐতিহ্য আর সম্মানের এল ক্ল্যাসিকো বলে কথা। আর তাতেই বার্ন্যাব্যুতে থামলো বার্সার টানা চার ম্যাচের জয়রথ। জমে ওঠা স্প্যানিশ লিগে কাতালানদের টপকে শীর্ষে এখন লসব্লাঙ্কোরা।

টানা ৭ এল ক্ল্যাসিকোয় জয়হীন জিদান শীষ্যরা। স্প্যানিশ লিগে লেভান্তে আর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ম্যানসিটির কাছে হেরে শঙ্কার মেঘ জমেছিলো রিয়াল শিবিরে।

প্রথমার্ধে গ্রিয়েজম্যান, আর্থার, মেসিদের আক্রমনে কাপছিলো স্বাগতিক রক্ষণ। কিন্তু কেউইই গোলের দেখা পাননি।

বাধার দেয়াল হয়েছিলেন একজন। থিবো কর্তোয়া। ৩৪ মিনিটে আর্থারের শট ফিরিয়ে গোল বঞ্চিত করেন এ বেলজিয়ান ওয়াল। মেসির একাধিক শট রুখেদেন কর্তোয়া। লা লিগায় শেষ ৩৬ শটের ৩০টি ফিরিয়ে নিজেকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছেন এ গোল রক্ষক।

বিপরীতে জাভিকে টপকে সবচেয়ে বেশি ৪৩তম এল ক্ল্যাসিকো স্মরণীয় করতে পারেননি মেসি।

দ্বিতীয়ার্ধটা রিয়াল মাদ্রিদময়। যেখারে রিয়ালের স্কোর বড় হয়নি বার্সা গোল রক্ষক টের স্টেগানের কল্যানে। ইস্কোর দূর পাল্লার দারুন শট ফিরিয়েছেন স্টেগান।

তবে ভিনিসিয়াসের ডিফ্লেক্টেড গোলে অসহায় ছিলেন এ গোলরক্ষক। এল ক্ল্যাসিকয়ো একবিংশ শতাব্দির সর্বকনিষ্ঠ ফুটবলার হিসেবে ১৯ বছর দুইশো তেত্রিশ দিন বয়সে গোলের দেখা পেয়েছেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড।

ম্যাচের অন্তিম সময়ে লা লিগায় কোন ম্যাচ না খেলা মারিয়ানো চমক। স্টেগানকে বোকা বানিয়ে রিয়ালকে দারুন জয় উপহার দেন বদলী হিসেবে নামা এ স্প্যানিশ।

চমক হয়ে রিয়াল মাদ্রিদের ভিআইপি বক্সে হাজির ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। লসব্লাঙ্কোদের জয়ে উল্লাসে মেতেছেন এ কিংবদন্তী ফুটবলার।

 

পাঠকের মতামত

আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

আমাদের অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ