পরিকল্পিতভাবে আমার ছেলেকে হত্যা : আবরারের বাবা

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদের বাবা বরকত উল্লাহ বলেছেন, আমার ছেলেকে পরিকল্পিতভাবে নির্যাতন করে হত্যা করা হয়েছে। আমার ছেলেকে ১/২ দু’জন হত্যা করেনি, ১৫ জন মিলে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে। আমি সবার ফাঁসি চাই।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৬টায় (৮ অক্টোবর) কুষ্টিয়া শহরের পিটিআই রোডের আল-হেরা জামে মসজিদে আবরারের দ্বিতীয় জানাজা শেষে এসব কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, ছয় ঘণ্টা ধরে নির্যাতন চালিয়ে আমার ছেলেকে হত্যা করা হয়েছে। দ্রুততম সময়ে ছেলে হত্যার বিচার চাই।

এর আগে ঢাকা থেকে মরদেহবাহী গাড়িতে করে আবরার ফাহাদের মরদেহ তার নিজ গ্রাম কুষ্টিয়ার কয়া ইউনিয়নের রায়ডাঙ্গায় আনা হয়। সোমবার রাত পৌনে ১০টার দিকে বুয়েটের কেন্দ্রীয় মসজিদের সামনে আবরার ফাহাদের প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। পরে মরদেহবাহী গাড়িতে করে আবরার ফাহাদের মরদেহ তার নিজ গ্রাম কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার কয়া ইউনিয়নের রায়ডাঙ্গায় আনা হয়।

রোববার গভীর রাতে বুয়েটের শেরে বাংলা হলে দ্বিতীয় তলার সিঁড়ি থেকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে আবরার ফাহাদকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সোমবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে কর্তব্যরত

পাঠকের মতামত

আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

আমাদের অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ