আশুলিয়ার পল্লী বিদ্যুত থেকে ৫৯১ পিস ইয়াবাসহ একজন আটক।

সিপিসি-২, র‌্যাব-৪ এর অভিযানে আশুলিয়া পল্লী বিদ্যুত থেকে ৫৯১ পিস ইয়াবা সহ মোঃ আরিফুল ইসলাম নামের একজনকে আটক করেছে, র‌্যাব-৪।

র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) এলিট ফোর্স হিসেবে আত্মপ্রকাশের সূচনালগ্ন থেকেই বিভিন্ন ধরনের অপরাধ নির্মূলের লক্ষ্যে অত্যন্ত আন্তরিকতা ও নিষ্ঠার সাথে কাজ করে আসছে।

খুন, ডাকাতি, দস্যুতা, ধর্ষণ, অপহরণ, চাঁদাবাজি, অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার ও সন্ত্রাসী গ্রেফতার এবং জঙ্গীবাদের মত ঘৃণ্যতম অপরাধ নির্মূল ও রহস্য উৎঘাটনের পাশাপাশি মাদক দ্রব্য উদ্ধার, মাদক ব্যবসায়ীদের গ্রেফতারসহ নেশার মরণ ছোবল থেকে তরুন সমাজকে রক্ষা করার জন্য র‌্যাব মাদক বিরোধী অভিযান জোরদার করেছে। বর্তমানে দেশে অর্থের লোভে বিপদগামী উঠতি বয়সের যুবকরাও এ ধরণের সন্ত্রাসী, নাশকতামূলক কর্মকান্ডে ও মাদক ব্যবসায় ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে পড়ছে এবং পেশাদার সন্ত্রাসী ও পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী হয়ে উঠছে। এ ধরণের সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ীদের আইনের আওতায় নিয়ে আসার জন্য র‌্যাব সদা সচেষ্ট।

এরই ধারাবাহিকতায় ১৭/০২/২০২০ তারিখ অনুমান ১৭.২০ ঘটিকার সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারা যায় যে, মাদক ব্যবসায়ীরা মাদক দ্রব্য ক্রয় বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে আশুলিয়া থানাথীন পল্লী বিদ্যুত এলাকায় অবস্থান করছে। উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে সিপিসি-২, র‌্যাব-৪ এর একটি আভিযানিক দল মেজর শিবলী মোস্তফা এর নেতৃত্বে প্রথমে ইং ১৭/০২/২০ তারিখ ১৮০০ ঘটিকায় আশুলিয়া থানাধীন পল্লী বিদ্যুত সাকিনস্থ পূর্ব ডেন্ডাবয় আর.ই.বি রোড় সংলগ্ন হাজী রিয়াজ উদ্দিন মার্কেট মেসার্স মাহি এন্টারপ্রাইজ এর পাকা রাস্তার উপর অভিযান পরিচালনা করে ৫৯১ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট ও ০১ টি মোবাইল সেট সহ মাদক ব্যবসায়ী উক্ত আসামী মোঃ আরিফুল ইসলাম (৩২), পিতা- মোঃ নজরুল ইসলাম, সাং- কেবশপুর, থানা- বাঘারপাড়া, জেলা- যশোর,এ/পি আর.ই.বি রোড়, পল্লী বিদ্যুত (আনোয়ার বাড়ীর ভাড়াটিয়া), থানা- আশুলিয়া, জেলা- ঢাকাকে গ্রেফতার করেন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, আসামীরা বিভিন্ন জায়গা থেকে ইয়াবা ক্রয় করে ঢাকা জেলার বিভিন্ন এলাকায় খুচরা বিক্রয় করে থাকে।

পাঠকের মতামত

আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

আমাদের অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ