অধিনায়কের দায়িত্ব নিয়েই তামিমের জরিমানা

শ্রীলঙ্কায় বড় হারে সিরিজ শুরু করার পর আবারো দুঃসংবাদ শুনতে হলো অধিনায়ক তামিম ইকবালের। ধীর গতির ওভার রেটের জন্য জরিমানা গুনতে হচ্ছে গোটা দলকে।

শুক্রবার সিরিজের প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার দেয়া ৩১৪ রানের জবাবে বাংলাদেশ অলআউট হয়ে যায় মাত্র ২২৩ রানে। ৯১ রানের লজ্জা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয় তামিমদের। এবার গুনতে হচ্ছে জরিমানাও। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে নির্ধারিত ৫০ ওভার বোলিং শেষ করতে না পারায় এই শাস্তির মুখে পড়তে হলো টাইগারদের। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ৪৮ ওভার শেষ করে বাংলাদেশ। অর্থাৎ, নির্ধারিত সময়ের চেয়ে ২ ওভার পিছিয়ে থেকে প্রথম ইনিংস শেষ করেন তামিম ইকবাল।

পরে দুই ফিল্ড আম্পায়ার নিতিন মেনন, রবীন্দ্র ইউলিয়ামসারি এবং থার্ড আম্পায়ার মারাইস এরাসমাস অভিযোগ দায়ের করেন। এরপর আইসিরিস এলিট প্যানেলের ম্যাচ রেফারি ক্রিস ব্রড টাইগারদের এই শাস্তি দেন।

আইসিসির নিয়ম অনুযায়ী, প্রতি এক ওভার দেরি করলে ম্যাচ ফির ১০ শতাংশ জরিমানা করা হয় দলের সকল সদস্যকে। আর অধিনায়ককে গুনতে হয় এর দ্বিগুণ জারিমানা। অবশ্য কিছুদিন আগে এই নিয়মে পরিবর্তন এনেছে আইসিসি। যদিও তা এখনো কার্যকর করা হয়নি।

২ ওভার পিছিয়ে থাকায় বাংলাদেশ দলের সকল সদস্যকে ম্যাচ ফি’র ২০ শতাংশ জারিমানা করা হয়েছে। আর অধিনায়ক তামিমকে করা হয়েছে ৪০ শতাংশ।

পাঠকের মতামত

আরো খবর

ফেসবুকে আমরা

আমাদের অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ